ওয়ানডে সিরিজের আগে ব্লুমফন্টেইনে দক্ষিণ আফ্রিকা বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলছে বাংলাদেশ। এদিন টসে জিতে ব্যাটিং নিয়ে সাকিব আল হাসান ও সাব্বির রহমান ফিফটির ওপর ভর করে ৪৮.১ ওভারে ২৫৫ রান সংগ্রহ বরে মাশরাফি বাহিনী।

এ ম্যাচেও ব্যর্থ সৌম্য। ওপেন করতে নেমে ফ্রিলিংকের বলে সিবোটোর হাতে ধরা পড়েন সৌম্য। ১৩ বল খেলে মাত্র ৩ রান করেন তিনি। শুরুর দিকে ভালোই পিটিয়ে খেলছিলেন ইমরুল কায়েস। ৩১ বল খেলে ২৭ রান করার পর ফিরতে হয়েছে তাকে। ৮ রান করে আউট হয়েছেন লিটন কুমার দাস। মুশফিকুর রহিমের কপাল আজো সহায় হয়নি। ২২ রান করার পর তাকে থামতে হয়েছে ফাঙ্গিসোর বলে আউট হয়ে সাজঘরে ফেরেন তিনি।

পঞ্চম উইকেট জুটিতে সে বিপর্যয় কিছুটা সামলে উঠেছিলেন সাকিব আল হাসান আর মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। এই উইকেটে তারা ৫৭ রান যোগ করেন। কিন্তু থিতু হয়েও আরেকবার ইনিংস বড় করতে না পারার আক্ষেপ নিয়ে সাজঘরে ফিরেন মাহমুদউল্লাহ। এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে পড়ার আগে ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান করেন ২১ রান।

তামিম ইকবালের অনুপস্থিতিতে প্রস্তুতি ম্যাচে ইনিংস উদ্বোধন করেন সৌম্য সরকার আর ইমরুল কায়েস। টেস্ট সিরিজের মত একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচটিতেও ব্যাট হাতে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছেন সৌম্য সরকার। বাঁহাতি এই ওপেনার করেন মাত্র ৩ রান।

বাংলাদেশ দল:
ইমরুল কায়েস, সৌম্য সরকার, মাশরাফি বিন মুর্তজা, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, সাব্বির রহমান, মুশফিকুর রহিম, নাসির হোসেন, সাকিব আল হাসান, মুস্তাফিজুর রহমান, লিটন দাস, মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন ও রুবেল হোসেন।

দক্ষিণ আফ্রিকা দল:
জেপি ডুমিনি (অধিনায়ক), ম্যাথিউ ব্রিটসকি, এমবুলেলো বুদাজা, এবি ডি ভিলিয়ার্স, রবি ফ্রাইলিঙ্ক, বেউরান হেনড্রিক্স, হেইনরিচ ক্লাসেন, কেশব মহারাজ, এইডেন মার্করাম, উইয়ান মুলডার, মালুসি সিবোতো ও খায়া জোন্দো।